জ্বীন তাড়ানোর সময় মেয়েটি কেমন ছটফট করতে লাগলো…(দেখুন ভিডিও)

জ্বীন তাড়ানোর সময় মেয়েটি কেমন ছটফট করতে লাগলো…(দেখুন ভিডিও)জ্বীন তাড়ানোর সময় মেয়েটি কেমন ছটফট করতে লাগলো…(দেখুন ভিডিও)জ্বীন তাড়ানোর সময় মেয়েটি কেমন ছটফট করতে লাগলো…(দেখুন ভিডিও)জ্বীন তাড়ানোর সময় মেয়েটি কেমন ছটফট করতে লাগলো…(দেখুন ভিডিও)জ্বীন তাড়ানোর সময় মেয়েটি কেমন ছটফট করতে লাগলো…(দেখুন ভিডিও)

ব্রেকিংঃ সড়কে প্রাণ গেলো ৩ জনের !! 0

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে একজন এবং চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলায় বাস ও হিউম্যান হলারের মুখোমুখি সংঘর্ষে দুজন নিহত হয়েছেন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান, শুক্রবার (১৫ জুন) ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে মির্জাপুর উপজেলার কুর্ণী এলাকায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে ঢাকাগামী হানিফ এন্টারপ্রাইজের যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে বিপরীত দিক থেকে আসা খালেক এন্টারপ্রাইজের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে কমপক্ষে ২০ জন আহত হন। আহত লোকজনের আর্তচিৎকারে স্থানীয় মানুষ উদ্ধারকাজে অংশ নেন। খবর পেয়ে পুলিশ ও মির্জাপুর ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে আহত লোকজনকে চিকিৎসার জন্য কুমুদিনী হাসপাতালে পাঠান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় এক ব্যক্তি মারা যান।

কুমুদিনী হাসপাতালের সহকারী প্রশাসক স্বপন কুমার মণ্ডল জানান, নিহত ব্যক্তি খালেক এন্টারপ্রাইজের চালক বলে আহত ব্যক্তিরা তাকে জানিয়েছেন। তবে তার নাম জানা যায়নি।মির্জাপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) রিপন নাগ জানান, নিহত ব্যক্তির পরিচয় খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে।

অপরদিকে এদিন সকাল সাড়ে ১০টার দিকে পটিয়া উপজেলার শাহগদী মার্কেট এলাকায় চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে কক্সবাজার থেকে আসা একটি হানিফ পরিবহনের বাস ও পটিয়া অভিমুখী একটি যাত্রীবাহী হিউম্যান হলারের মধ্যে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই হিউম্যান হলারের চালকের মৃত্যু হয়। পরে ওই গাড়ির যাত্রী এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। আহতদের পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পটিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মো. নেয়ামতউল্লাহ বলেন, নিহতদের নাম-পরিচয় এখনও আমরা পাইনি। তবে এদের মধ্যে একজন পুরুষ ও একজন নারী। হাসপাতালে ভর্তি হওয়া ১৯ জনের পরিচয় পাওয়া গেছে।

এদের অধিকাংশই হিউম্যান হলারের যাত্রী ছিলেন বলে জানিয়েছেন ওসি।