মহাকাশে হোটেল খুলছে

পৃথিবীর বিভিন্ন প্রান্তে ঘুরতে ঘুরতে যারা ক্লান্ত হয়ে গিয়েছেন, তাদের জন্য সুসংবাদ! খুব শীঘ্রই পর্যটকদের জন্য মহাকাশে হোটেল খোলা হচ্ছে। তাও আবার একটি-দুটি নয়, পাঁচটি হোটেল পর্যটকদের সেবার নিয়োজিত থাকবে। মার্কিন সংবাদমাধ্যম স্কাই নিউজ শনিবার এক প্রতিবেদনে জানায়, সম্প্রতি একটি মহাকাশ বিজ্ঞান সম্মেলনে এমন ঘোষণা দেয়া হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার সান জোসে’তে আয়োজিত স্পেস ২.০ সম্মেলনে বৃহস্পতিবার বিশেষ বিনোদনমূলক হোটেল খোলার সিদ্ধান্তের কথা বলা হয়। প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘অরোরা স্টেশন প্রজেক্ট’র আওতায় দুই কর্মীসহ ৬ জনের জিরো গ্রাভিটিতে বসবাসের সুযোগ মিলবে।

ঘোষণায় বলা হয় হয়েছে যে টানা ১২ দিনের ওই সফরে পর্যটকেরা যে সুযোগ সুবিধা পাবেন, তা যে কোনো প্রথম শ্রেণীর হোটেলে দেয়া হয়ে থাকে। সেই সাথে থাকবে মহাকাশে নভোচারী হয়ে তারকামণ্ডল দেখার সুযোগ!

জিরো গ্রাভিটিতে অর্থাৎ মধ্যাকর্ষণ ছাড়া ভাসতে ভাসতে মহাকাশের বিরল নানা অভিজ্ঞতা নেয়ার পাশাপাশি যে অভিজ্ঞতাটি তাদের হবে তা কোনো পৃথিবী বাসির হয়নি। তা হচ্ছে ২৪ ঘণ্টায় অর্থাৎ পৃথিবীর হিসেবে একদিনে গড়ে ১৬ বার সূর্যোদয় এবং সূর্যাস্ত দেখার সৌভাগ্য হবে।

সম্মেলনেই অনেক সাংবাদিক প্রশ্ন করেন, পৃথিবীকে চক্কর দিতে গিয়ে ভাম্যমান হোটেলটি আবার মহাকাশে হারিয়ে যাবে কিনা। বিজ্ঞানীরা অবশ্য আশ্বস্ত করে বলেন, এমন কোনো আশঙ্কাই নেই।

অবশ্য হোটেল সুবিধা দেয়া ছাড়াও এই প্রকল্পের অধীনে বেশ কিছু গবেষণাও চলবে। মহাকাশে খাদ্যের উৎপাদন নিয়ে গবেষণা ছাড়াও ভার্চুয়াল রিয়ালিটি, হাই স্পিড ইন্টারনেট সুবিধা বিষয়েও বিজ্ঞানীরা খতিয়ে দেখবেন।

প্রকল্পটি সম্পর্কে ওরিয়ন স্পানের প্রতিষ্ঠাতা এবং প্রধান ফ্রাঙ্ক বাংগার সংবাদমাধ্যমকে জানান, আগামী ২০২১ সাল নাগাদ হোটেলটির উদ্বোধন করা হবে। সেই বছরই মহাকাশে পর্যটকদের প্রথম দলটিকে মহাকাশে পাঠানো হবে।

তবে খরচ যে আকাশচুম্বী হবে তা বলাই বাহুল্য! এমনকি আগ্রহী পর্যটকদের বিশাল অংকের অর্থ জা
পরিবর্তন আসছে জি-মেইলে
বর্তমানে জি-মেইলের মাধ্যমে তথ্যের শেয়ার করা হয়ে থাকে অনেক। তাই জি-মেইল নিয়ে আগ্রহ রয়েছে প্রায় সবার। জি-মেইলের পরিবর্তন আসলে সবাই জানার জন্য আগ্রহী হয়ে উঠে।

এবার জি-মেইলে পরিবর্তন আনার পরিকল্পনা করছে গুগল। ওয়েবে সেবাটির যে পরিবর্তন আসবে তা ইতিমধ্যে প্রকাশ করা হয়েছে। জি-স্যুট অ্যাকাউন্ট কর্তৃপক্ষের কাছে গুগলের পাঠানো এক ই-মেইলের মাধ্যমে এটা প্রকাশিত হয়।

জানা গেছে, জি-মেইলের কনজিউমার ভার্সনেও এসব পরিবর্তন দেখা যাবে। এই পরিবর্তনের ফলে ব্যবহারকারীরা অনেক সুবিধা পাবেন। এর মধ্যে কয়েকটি হলো-

আরও খবর : শিশুদের কম্পিউটার ব‍্যবহার যেভাবে নিয়ন্ত্রণ করবেন

১. জি-মেইলে থেকেই বিভিন্ন অ্যাপে প্রবেশ করতে পারবেন ব্যবহারকারীরা। বর্তমানে মেইলে থাকাকালীন অন্য কোনও অ্যাপ ব্যবহার করা যায় না। কিন্তু পরিবর্তনের ফলে জি-মেইল থেকে বের না হয়েও সহজেই অন্য অ্যাপে প্রবেশ করা যাবে।

২. মেইলের রিপ্লাই বা উত্তরের জন্য অনেক টেক্সট আর টাইপ করতে হবে না। গুগলের এই পরিবর্তনের ফলে নির্দিষ্ট কিছু টেক্সট আগে থেকেই টাইপ করা থাকবে (যেমন- থ্যাঙ্ক ইউ, লেটস গো কিংবা এ ধরনের আরও শব্দ সমষ্টি)। প্রয়োজনের সময় এগুলো সিলেক্ট করে অল্প সময়ের মধ্যেই উত্তর দেওয়া সম্ভব হবে।

৩. অবশেষে ওয়েব ব্যবহারকারীদের জন্য অফলাইন জি-মেইল সুবিধা আনতে যাচ্ছে গুগল। এ ফিচারটি চলতি বছরের জুনের মধ্যে নিয়ে আসা হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। অফলাইন জি-মেইল সম্পর্কে প্রতিষ্ঠানটি বিস্তারিত জানাবে মে মাসে তাদের আইও কনফারেন্সে।